বাংলালিংক সিম বন্ধ করার নিয়ম

বিভিন্ন  কারনে আমাদের বাংলালিংক সিম বন্ধ করার প্রয়োজন হয়, কিন্তু আমরা অনেকেই বাংলালিংক সিম বন্ধ করার নিয়ম জানিনা। আজ আমি আপনাদের বাংলালিংক সিম বন্ধ করার নিয়ম গুলো বলব এবং সিম বন্ধ করার জন্য আপনার কোন নিয়ম গুলো অনুসরণ করতে হবে তা বিস্তারিত উল্লেখ করব।

বাংলালিংক সিম বন্ধ করার নিয়ম


বাংলালিংক সিম ২ ভাবে বন্ধ করা যায়, প্রথমতঃ সাময়িকভাবে, দ্বিতীয়তঃ স্থায়ীভাবে। আর ২টি পদ্ধতির জন্য আপনাকে আলাদা আলাদা নিয়ম অনুসরণ করতে হবে। আমাদের সাথে বাংলালিংক সিম বন্ধ করার ২ টি নিয়ম শেয়ার করব, যাতে আপনার প্রয়োজন অনুযায়ী ইচ্ছা আপনার সিম বন্ধ করতে পারেন।

বাংলালিংক সিম সাময়িক ভাবে বন্ধ করার নিয়ম

সাময়িকভাবে বাংলালিংক বন্ধ করার জন্য আপনাকে বেশি কষ্ট করতে হবে না। প্রথমে আপনাকে বাংলালিংক এর হেল্পলাইন নাম্বার 121 এ ফোন করতে হবে। এরপর কাস্টমার সার্ভিস ম্যানেজার এর সাথে আপনার সমস্যাটি উল্লেখ করবেন এবং আপনার বাংলালিংক সিম টি সাময়িকভাবে বন্ধ করতে চান সেটি তাকে জানাবেন।

সিম বন্ধ করার জন্য মালিকানা যাচাই করার প্রয়োজন হয়, তাই কাস্টমার কেয়ার ম্যানেজারের আপনার কাছে কিছু তথ্য চাইবে। তবে বেশি কোন দরকার চাইবে না শুধু মাএ সিমটি যার এনআইডি (NID) কার্ড দিয়ে রেজিস্ট্রেশন করা। তাকে ফোনে কথা বলতে হবে (অনেক সময় প্রয়োজন নাও হতে পারে) এবং তার এনআইডি সংক্রান্ত তথ্য চাইবে। যেমন এনআইডি কার্ড এর নাম্বার, জন্ম তারিখ ইত্যাদি।

এরপর বাংলালিংক (Banglalink) কর্তৃপক্ষ আপনার সিমটি সাময়িকভাবে বন্ধ করে দেবে। তবে আপনি চাইলে যেকোন সময়ে আবার সার্ভিস সেন্টারে কল করে কাস্টমার ম্যানেজারের সাথে কথা বলে পুনরায় আপনার সিমটি চালু করতে পারবেন।

বাংলালিংক সিম স্থায়ী ভাবে বন্ধ করার নিয়ম

বাংলালিংক সিম স্থায়ীভাবে বন্ধ করার জন্য আপনাকে নিকটস্থ কাস্টমার সার্ভিস সেন্টারে যেতে হবে। আপনি হেল্প লাইনে ফোন করে স্থায়ীভাবে সিম বন্ধ করতে পারবেন না। এজন্য স্থায়ীভাবে সিম বন্ধ করতে চাইলে আপনার নিকটস্থ কাস্টমার সার্ভিস সেন্টারে প্রয়োজনীয় তথ্য সাথে নিয়ে যেতে হবে।

আপনার সিমটি যে এনআইডি (NID) কার্ড দিয়ে রেজিস্ট্রেশন করা সেই এনআইডি কার্ড টি সাথে নিতে হবে এবং যার এনআইডি কার্ড তাকেও সাথে যেতে হবে, আপনার নিজের নামে হলে তো সমস্যা নেই আপনি একা গেলেই হবে।

কারণ কাস্টমার কেয়ার ম্যানেজার আপনার কাছে সিমটি যার নামে রেজিস্ট্রেশন তার এনআইডি কার্ড চাইবে এবং যার নামে রেজিস্ট্রেশন তার ফিঙ্গারপ্রিন্ট এর প্রয়োজন হবে। তাই বাংলালিংক সিম বন্ধ করার জন্য অবশ্যই কাস্টমার সার্ভিস সেন্টারে যাওয়ার আগে এই বিষয়গুলো লক্ষ্য রাখবেন

বাংলালিংক সিম বন্ধ করার নিয়ম গুলোর মধ্যে আরেকটি হচ্ছে আপনি ১ দিনে সর্বোচ্চ একটি বাংলালিংক সিমে স্থায়ীভাবে বন্ধ করতে পারবেন। যদি আপনার একাধিক সিম বন্ধ করার প্রয়োজন হয় তাহলে 24 ঘন্টা পরে করতে পারবেন, কিন্তু 24 ঘন্টার ভিতরে ২টি বা একাধিক সিম বন্ধ করতে পারবেনা।

আরও পড়ুন:

আশা করি বুঝতে পেরেছেন বাংলালিংক সিম বা যেকোনো সিম সংক্রান্ত কোন প্রশ্ন বা সমস্যার জন্য আমাদের সাথে যোগাযোগ করতে পারেন বা কমেন্ট বক্সে জানাতে পারেন। অসংখ্য ধন্যবাদ, আমাদের ওয়েব সাইট নিয়মিত ভিজিট করার জন্য অনুরোধ রইল।
Next Post Previous Post
No Comment
Add Comment
comment url